বিদেশ থেকে কলার পোস্ট দেয়ায় বাবাকে পিটালেন কলা বিক্রেতার ছেলে ছাত্রলীগ সভাপতি

23
125

বিদেশে বসে ছেলে ফেসবুকে কলা খাওয়ার ছবি পোস্ট করার অপরাধে চা দোকানদার পিতাকে কর্মী দিয়ে ধরে নিয়ে পিটিয়েছেন মৌলভীবাজারের জুড়ী উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি সাহাব উদ্দিন সাবেল। ছাত্রলীগ নেতার বাবা আগে কলার ব্যবসা করতেন। তাই এ ঘটনা ঘটেছে বলে জানান ভুক্তভোগী। এর বিচার চেয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী স্বপন মিয়া।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, জুড়ী শিশুপার্ক সংলগ্ন চা দোকানদার স্বপন মিয়ার ছেলে দুবাই প্রবাসী নাইম আহমদ কয়েক দিন পূর্বে দুবাইয়ে বসে কলা খাওয়ার একটি ছবি নিজের ফেসবুকে আইডিতে পোস্ট করেন। এ ছবি দেখে ক্ষিপ্ত হন উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি সাহাব উদ্দিন সাবেল। বৃহস্পতিবার রাতে প্রবাসী নাইম মিয়ার পিতা চা দোকানদার স্বপন মিয়াকে সাবেলের নির্দেশে জুড়ী নিউ মার্কেটে ছাত্রলীগের কর্মীরা তুলে নিয়ে যায়।

সেখানে ছাত্রলীগ সভাপতি সাহাব উদ্দিন সাবেলসহ তার কর্মীরা তাকে চড়-থাপ্পড় মেরে কান ধরে ওঠবস করায়। পরে উপস্থিত সবার সামনে দোকানদারকে সাবেলের কাছে ক্ষমা চাওয়ায়। ছেলের বয়সী ছাত্রলীগ সভাপতির পায়ে ধরে ক্ষমা চেয়ে পার পান চা দোকানদার স্বপন মিয়া। পরে তিনি জুড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নেন এবং থানায় বিচারপ্রার্থী হন।

ঘটনার পরদিন শুক্রবার রাতে স্থানীয় দুই আওয়ামী লীগ নেতার মধ্যস্থতায় থানায় সালিশ বৈঠক বসে। সেখানেও ছাত্রলীগ সভাপতি সাবেল তাকে দা নিয়ে ধাওয়া করেন। সালিশ সন্তোষজনক না হওয়ায় সাবেলসহ ঘটনাকারীদের বিরুদ্ধে তিনি থানায় মামলা করেছেন।

ভুক্তভোগী চা দোকানি স্বপন মিয়া জানান, তার ছেলে বিদেশে থাকে। সেখানে সে কলা খেয়ে কলার ছবি ফেসবুকে দিয়েছে। এসব কিছুই জানি না। বৃহস্পতিবার রাতে হুমায়ূন, কিবরিয়া, রুহানসহ কয়েকজন জোর করে মোটরসাইকেলে তুলে নিয়ে মার্কেটের তিনতলায় নিয়ে যায়। সেখানে আমাকে মারধর করে সাবেলের পায়ে ধরে ক্ষমা চাওয়ায়।

ভুক্তভোগী আরও জানান, এক সময় তার (সাবেলের) বাবা কলা বিক্রি করতেন। এ কারণে নাকি আমার ছেলে কলার ছবি ফেসবুকে ছেড়ে তাকে অপমান করেছে। উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সাহাব উদ্দিন সাবেল জানান, চা দোকানদার স্বপন মিয়ার সঙ্গে ছোটভাইদের একটু ভুল বোঝাবুঝি হয়েছে। বিষয়টি নিষ্পত্তির চেষ্টা চলছে। থানার ওসি সঞ্জয় চক্রবর্তী জানান, ভুক্তভোগী স্বপন মিয়া থানায় একটি অভিযোগ দিয়েছেন। তদন্তসাপেক্ষে এ ব্যাপারে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

23 COMMENTS

  1. Hi there, I discovered your site via Google whilst looking
    for a similar matter, your website got here up,
    it seems to be great. I’ve bookmarked it in my google bookmarks.

    Hello there, just become aware of your blog thru Google, and found that it is really informative.
    I’m gonna watch out for brussels. I will appreciate should you proceed this in future.

    A lot of people will likely be benefited from your writing.
    Cheers!

Comments are closed.